ইউটিউব প্রতি 1000 ভিউতে কত টাকা দেয় - Technical Trick

Breaking

Recent Posts

বুধবার, ৩০ সেপ্টেম্বর, ২০২০

ইউটিউব প্রতি 1000 ভিউতে কত টাকা দেয়

Hi Friends আশা করি আপনারা সবাই ভাল আছেন আমিও ভাল আছি  আজকে আমি
যে বিষয়ে আলোচনা করব সেটা হচ্ছে : ইউটিউব প্রতি 1000 ভিউতে কত টাকা দেয় এবং আপনি ইউটিউব থেকে কত টাকা ইনকাম করতে পারবেন? 

এই আর্টিকেলটি আপনি যদি লাস্ট অব্দি পড়েন আপনি ভালো ভাবে বুঝতে পারবেন 
ইউটিউব প্রতি 1000 ভিউতে কত টাকা দেয় তাহলে আপনাকে আর অন্য কোথাও যেতে
হবে না ।
ইউটিউব প্রতি 1000 ভিউতে কত টাকা দেয়



ইউটিউব প্রতি 1000 ভিউতে কত টাকা দেয় 


Friends আপনি যদি একটা ইউটিউব চ্যানেল খুলেন অর্থাৎ আপনি যদি একজন ইউটিউবার হয়ে থাকেন তাহলে আপনার মনে এমন প্রশ্ন আসতে পারে যে ইউটিউব প্রতি 1000 ভিউতে কত টাকা দেয় ? এবং এমন প্রশ্ন আসা আপনার মনে স্বাভাবিক কারণ আপনি যে কাজটি করেছেন ওই কাজে কতটা সাকসেস আছে ওটা জানাও খুবই জরুরী ।

Friends ইউটিউব যে আপনাকে টাকাটা দেয় ওটা সাধারণত আপনার সাবস্ক্রাইবার বা ভিউজ এর উপর নির্ভর করে না ওটা শুধুমাত্র নির্ভর করে আপনার ভিডিওতে কতটা অ্যাড আসছে এবং কি প্রকারের অ্যাড আসছে ?

ফ্রেন্ডস ইউটিউব এর ইনকাম টা সাধারণত আপনার ভিডিওর Length এবং ওয়াচ টাইম এর উপর নির্ভর করে । কারণ আপনি যে ভিডিওটা ছাড়ছেন ওই ভিডিওটা Length যদি 10 মিনিটের হয়ে থাকে এবং ওর যদি এভারেজ ওয়াচ টাইম মিনিমাম ৭ মিনিট হয়ে থাকে তাহলে আপনার ওই সাত মিনিট ভিডিও দিতে অনেক গুলো এড আসবে এবং ওই অ্যাডগুলোতে যদি দর্শকেরা ক্লিক করে তাহলে ওখান থেকে আপনি ভাল রেভিনিউ জেনারেট করতে পারবেন ।

সাধারণত ফ্রেন্ড আপনার ভিডিওটিতে যে Add টি  আসছে ওই Add এর ওপর  যত বেশি দর্শক ক্লিক করবে আপনার ইউটিউব থেকে ইনকাম তত বাড়বে ।

এখন আমি যদি বলি আপনার একটি ভিডিওতে যদি 1000 ভিউজ হয়ে থাকে এবং এবং ওই ভিডিওটি যদি ওয়াচ টাইম বেশি হয়ে থাকে তাহলে আপনার ওই ভিডিও তে যে অ্যাড টি এসেছে ওই  ভিডিওতে ওই এড এর উপর যদি দর্শকরা বেশি ক্লিক করে থাকে তাহলে আপনার ইনকাম টা বেশি হতে পারে এবং ইনকাম টা সবসময় 1000 ভিউস এ  বিভিন্ন ভিডিওতে বিভিন্ন হতে পারে ।

আর একটা প্রধান বিষয় হচ্ছে আপনি কোন বিষয়ের উপরে ইউটিউবে ভিডিও বানাচ্ছেন এবং আপনি যে বিষয়ের উপরে ভিডিও বানাবেন ওই বিষয়ের উপরে আপনার এড আসবে এবং পত্রিকা অ্যাড এর সিপিসি সাধারানত আলাদা হয়ে থাকে তাই আপনার ইনকাম টা সম্পূর্ণ আলাদা হবে প্রতিটা ভিডিও তে ।


মোদ্দা কথা হচ্ছে আপনার যে ভিডিওটিতে ১০০০ ভিউজ হয়েছে এবং ওই ভিডিও তে যত অ্যাড এসেছে এবং ওই অ্যাড এর উপর যত দর্শক ক্লিক করবে ওরই  উপরে আপনার ইউটিউব এর ইনকাম নির্ভর করবে ।




ইউটিউব থেকে টাকা তুলব কিভাবে ? 


Friends ইউটিউব থেকে টাকা তুলতে গেলে আপনাকে আপনার ইউটিউব চ্যানেলের একটা গুগল এডসেন্স একাউন্ট বানাতে হবে ।

গুগল অ্যাডসেন্স অ্যাকাউন্ট বানানোর জন্য আমি নিচে একটা লিংক দিয়ে দিয়েছি ওই লিংকে ক্লিক করে আপনি এডসেন্স একাউন্ট বানাতে পারবেন ।

Create AdSense Account : Google AdSense 

Friends আপনি গুগল অ্যাডসেন্স অ্যাকাউন্ট Approved তখনই পাবেন যখন আপনার চ্যানেলের মনিটাইজেশন হয়ে যাবে অর্থাৎ আপনার চ্যানেলে মনিটাইজেশন হওয়ার জন্য 1000 সাবস্ক্রাইবার এবং 4000 ঘন্টা ওয়াচ টাইম যেন ফুলফিল হয়ে থাকে ।

প্রথমে আপনাকে গুগল এডসেন্স একাউন্টের ইন্টারফেসে গিয়ে ওখানে সাইন আপ করে নিতে হবে সাইন আপ করার জন্য আপনি যে জিমেইল আইডিটা দিয়ে ইউটিউব চ্যানেল টা খুলেছে ওই জিমেইল আইডিটি দিয়ে গুগল এডসেন্স একাউন্ট সাইনআপ করে নিবেন.

সাইন আপ করার পর আপনি পুরো গুগল এডসেন্স একাউন্টের ড্যাশবোর্ডে চলে আসবেন এখানে আপনি পুরো কমপ্লিট অ্যানালিসিস দেখতে পারবেন আপনার ইউটিউব চ্যানেলের ।

ফ্রেন্ডস ইউটিউব চ্যানেলের ইনকাম যখন আপনার ১০ ডলারের বেশি হয়ে যাবে তখন ইউটিউব থেকে আপনার অ্যাড্রেসে ( যে এড্রেস তা আপনি এডসেন্স একাউন্ট তৈরি করার সময় দিয়েছেন ) পিন ভেরিফিকেশন এর জন্য একটা কোড পাঠাবে ।ওই পিন টাকে আপনার এডসেন্স একাউন্ট এ পেস্ট করতে হবে ।


 তারপর আপনাকে পাশে ম্যানেজ বণ্টন থাকবে একটা ওখানে ক্লিক করে আপনার পেমেন্ট অপশন দিতে হবে যদি আপনি ব্যাংক থেকে পেমেন্ট নিতে চান তাহলে ব্যাংকের আপনি ইনফর্মেশন যেমন অ্যাকাউন্ট নাম্বার আইএফসি কোড ব্রাঞ্চ নেম সবকিছু দিতে হবে ওই এডসেন্স একাউন্ট থেকে পেমেন্ট নেওয়ার জন্য ।

এবং ফ্রেন্ডস যখনই আপনার ইউটিউব চ্যানেল থেকে ইনকাম টা 100 ডলারের বেশি হয়ে যাবে তখনই আপনি ইউটিউব থেকে টাকা উইথড্র করতে পারবেন এবং উইথ ড্র করার জন্য ইউটিউব এর প্রতি মাসে একটা নির্দিষ্ট ডেট থাকে ওই ডেটেই আপনি টাকাটা Youtube থেকে উইথড্র করতে পারবেন ।

 আর ফ্রেন্ডস আপনার চ্যানেলের ইনকাম টা যদি প্রতি মাসে 100 ডলারের বেশি হয়ে থাকে তাহলে আপনি প্রতিমাসে ওই নির্দিষ্ট ডেট এই টাকা তুলতে পারবেন ।




ইউটিউব এ আয়ের পরিমান 



ফ্রেন্ডস ইউটিউব থেকে আয়ের পরিমাণ টা পুরোপুরি নির্ভর করবে আপনার কাজের উপর আপনি যতটা কনসিসটেন্সি হয়ে কাজ করবেন যতটা কনসিসটেন্সি হয়ে ইউটিউবে ভিডিও ছাড়বেন ততই আপনার ইনকাম হবে ইউটিউব থেকে ।

ইউটিউব থেকে আয়ের পরিমাণ বেশি পেতে হলে আপনাকে প্রতিদিন মিনিমাম একটা ভিডিও ছাড়তে হবে এবং প্রতিদিন যদি না দিতে পারেন তাহলে আপনাকে সপ্তাহে দুই থেকে তিনটা ভিডিও দিতে হবে এবং একটা নির্দিষ্ট টাইম এ দিবেন।

ফ্রেন্ডস ইউটিউব থেকে আপনি যদি অনেক টাকা ইনকাম করতে চান তাহলে আপনার ভিডিওর Length টাকে একটু মিডিয়াম রাখতে হবে অর্থ্যাৎ মানে দশ থেকে পনেরো মিনিটের মধ্যে রাখতে হবে । বেশি Length ভিডিও রাখলে হয়তো আপনার ভিয়ার্স ও দেখতে পছন্দ করবে না । আপনার watch টাইম যতটা বেশি রাখবেন ততই আপনার Youtube  থেকে ইনকাম ভালো জেনারেট করতে পারবেন ।

এবং আরেকটা প্রধান কারণ হচ্ছে আপনার ইউটিউবে ইনকাম বৃদ্ধি করতে আপনি ইউটিউবে যে ভিডিওটা ছাড়ছেন ওটা কোন বিষয়ের উপর । যদি আপনি ইউটিউবে ভিডিও ছাড়েন টেকনোলজির উপর  তাহলে আপনার ইনকাম টা বেশি হবে যদি আপনার এন্টারটেইনমেন্ট এর উপর হয়ে থাকে তাহলে আমার ইনকামটা কম হবে ।

কারণ টেকনোলজির উপরে যে আপনি যে অ্যাড টা পাবেন আপনার ভিডিওতে ওটার কষ্ট আর ক্লিক ( সিপিসি ) বেশি হবে এবং এন্টারটেইনমেন্ট  উপরে যে অ্যাড টা  আপনি পাবেন ওর কষ্ট আর ক্লিক ততটা বেশি হবে না । এখানে আমি একটা কথা বলব আপনাকে ইনকাম এর উপর দিয়ে গেলে হবে না আপনি যে বিষয়ে  কাজ করতে পছন্দ করেন মাঝে বিষয়ে আপনার কাজ করতে ইচ্ছুক এই বিষয়ের উপরে আপনি ভিডিওটা বানান.

অবশেষে আমি বলব ফ্রেন্ড আপনার ইউটিউব থেকে ইনকাম টা আপনি মিনিমাম পেতে পারেন কিন্তু আপনি ম্যাক্সিমাম কোনদিনও পেতে পারবেন না কারণ আপনার ম্যাক্সিমাম ইনকামটা আপনার উপরে নির্ভর করবে । আপনি যতটা ধৈর্য রেখে ভিডিও ছাড়বেন এবং আপনার ভিডিওর কোয়ালিটি যত ভালোই হবে আপনার ভিউয়ারস আপনার ভিডিও  টিকে দেখতে খুবই পছন্দ করবে এবং আপনার ইনকাম আরো বৃদ্ধি হবে ।


আমার লাস্ট কথা  :


ফ্রেন্ডস আপনি যদি ইউটিউব চ্যানেল বানানোর জন্য ভাবছেন তাহলে আপনি আজই একশন নিন অর্থ্যাৎ আপনি আজকে কাজ শুরু করুন । আপনি যদি আজকে অ্যাকশন নেন তাহলে আপনি অনেক টিউটোরিয়াল দেখবেন কিন্তু আপনার কোন কিছুই কাজে আসবে না কারণ আপনি ঐ কাজের উপর ততটা ধৈর্য ধরতে পারছেন না ।

আশাকরি ফ্রেন্ড আপনি Tutorial টি পড়ে ভালোভাবে বুঝতে পেরেছেন যদি বুঝতে পেরে থাকেন তাহলে আমার এই Tutorial টি  আপনার বন্ধু বান্ধবদের সাথে শেয়ার করুন যাতে ওরা ও অ্যাকশন নেয় ইউটুবে চ্যানেল বানানোর জন্য ।




অবশেষে ফ্রেন্ড আমাদের সাথে জুড়ে থাকার জন্য নিজে সাবস্ক্রাইব অপসন এ  ওখানে আপনার ইমেইল আইডি দিয়ে সাবস্ক্রাইব করে রাখুন যাতে আমার পরবর্তী টিউটোরিয়াল দেওয়ার সঙ্গে সঙ্গে আপনার কাছে নোটিফিকেশন চলে যায় ।


আজকে এই পর্যন্ত পরবর্তী টিউটোরিয়াল আমার শীঘ্রই আসবে 

                                        Thank you, 



কোন মন্তব্য নেই:

একটি মন্তব্য পোস্ট করুন

Please do not enter any spam link in the comment box.